করোনার জেরে গর্ভবতী হয়ে পরছেন মহিলারা, জন্মাতে পারে ৭০ লক্ষ শিশু – জানাচ্ছে UNFPA এর সমীক্ষা

0
512
প্রতীকী ছবি

করো’না ভাই’রাসের আত’ঙ্কে কাঁপছে গোটা দুনিয়া। ভাই’রাসের সংক্র’মণ রুখতে আপাতত লকডাউনে পথেই হাঁটছে একাধিক দেশ। কবে উঠবে লকডাউন কেউ জানেন না। তারই মধ্যে রাষ্ট্রপুঞ্জের পপুলেশান ফান্ড (UNFPA) ও তার সহযোগী সংস্থাগুলির একটি সমীক্ষা ভয়া’বহ উদ্বেগের কথা শুনিয়েছে। এই পরিস্থিতিতে বাজার থেকে উধাও হচ্ছে গ’র্ভনি’রোধক। যার ফলে অল্প ও মধ্য আয়ের দেশ গুলির অন্তত ৪ কোটি ৭০ লক্ষ মহিলা ওইসব অত্যাধুনিক গ’র্ভনি’রোধক ব্যবহার করতে পারছেন না।

ফলে পরবর্তী কয়েক মাসের মধ্যে ওই দেশগুলিতে অনিচ্ছাকৃত মাতৃত্বের শিকার হতে হবে আরও ৭০ লক্ষ মহিলা কে। উল্লেখ্য, এর আগেই রিপোর্টে প্রকাশ, লকডাউনের জেরে গার্হস্থ্য হিং’সার পরিমাণ অনেক বেড়ে গিয়েছে। অনেকে আবার যৌ’ন নি’পীড়’নেরও শিকার হচ্ছেন।

লকডাউনের সময় এই সমস্যার ফলে অল্প ও মধ্য আয়ের দেশগুলির মহিলারা যেমন পরিবার কল্যাণ কর্মসূচিতে অংশ না নিতে পেরে অনিচ্ছাকৃত মাতৃত্বের শিকার হতে চলেছেন। সমীক্ষা বলছে, লকডাউনের আগে পর্যন্ত বিশ্বের অল্প ও মধ্য আয়ের ১১৪টি দেশের প্রায় ৪৫ কোটি মহিলা নিয়মিত ভাবে গ’র্ভনি’রোধক ব্যবহার করতেন। সমীক্ষাটি চালাতে UNFPA-কে সহযোগিতা করেছে আমেরিকার জন্স হপকিন্স বিশ্ববিদ্যালয়, অ্যাভেনির হেল্‌থ এবং অস্ট্রেলিয়ার ভিক্টোরিয়া বিশ্ববিদ্যালয়। তাই এই লকডাউন পিরিয়ড ৬ মাসের বেশি সময় ধরে চললে, পৃথিবীর ৭০ লাখ মহিলা অনিচ্ছা সত্ত্বেও গর্ভবতী হয়ে পড়তে পারেন বলে মনে করছে রাষ্ট্রসংঘ।

সূত্র –