সূর্য‍্যগ্রহন উপলক্ষ‍্যে ছুটি ঘোষনা করলেন রাজ‍্য সরকার

0
789

এ আবার কেমন কথা হল। দেশের বিভিন্ন রাজ্যের সরকার সারা বছরের তালিকাভূক্ত নির্দিষ্ট কিছু ছুটি ছাড়াও বেশকিছু ছুটি ছাটা দিয়ে থাকে। কখনও গণপতি উৎসব তো কখনও দূর্গাপূজা। পশ্চিমবঙ্গে জামাই ষষ্ঠীর জন্য সরকার হাফ ছুটি দেয়, অন্যান্য উৎসবের জন্যও বিভিন্ন রাজ্যেই এই ছুটির ব্যবস্থা করা হয়। তবে ওড়িশা সরকার যে ছুটি দিয়েছে তা একেবারেই অভিনব তা বলাই যায়।

সূর্যগ্রহণ উপলক্ষে সরকারি ছুটি ঘোষণা করেছে নবীন পট্টনায়েকের বিজু জনতা দল সরকার। হ্যাঁ ঠিকই শুনেছেন। সূর্যগ্রহণের জন্য ছুটি। বৃহস্পতিবার রাজ্যের সব সরকারি দফতর, স্কুল, কলেজ, আদালতে কাজ বন্ধ। কারণ ছুটি ঘোষণা করেছে রাজ্য সরকার। উপলক্ষ্য সূর্য গ্রহণ।

বৃহস্পতিবার ২৬ ডিসেম্বর রাজ্যে ছুটি ঘোষণা করেছে ওড়িশা সরকার। ওড়িশা সরকারের তরফে রাজস্ব ও দুর্যোগ মোকাবিল দফতর নির্দেশিকা জারি করে জানিয়েছে, বৃহস্পতিবার রাজ্য সরকারি সব অফিস, রেভিনিউ এবং ম্যাজিস্টেরিয়াল আদালত বন্ধ থাকবে সূর্য গ্রহণ উপলক্ষ্যে। সব স্কুল এবং কলেজ ২৬ ডিসেম্বর বন্ধ থাকবে বলে জানিয়েছেন ওড়িশার শিক্ষামন্ত্রী সমীররঞ্জন দাশ।

পুরীর শ্রীজগন্নাথ মন্দির প্রশাসন জানিয়েছে, ২৫ ডিসেম্বর রাতে ভক্তদের জন্য খোলা থকবে মন্দির। তবে ভক্তরা প্রভু শ্রী জগন্নাথের দর্শন সূর্য গ্রহণ চলাকীলন পাবেন না বলে জানানো হয়েছে মন্দির প্রশাসনের তরফে। জানা গেছে সেই সময়ই মন্দিরের গর্ভগৃহে বিশেষ পূজার আয়োজন করা হয়েছে। তাই সেই সময় ভক্তরা তাই প্রভু শ্রী জগন্নাথের দর্শন থেকে বঞ্চিতই থেকে যাবেন।

প্ল্যানেটোরিয়ামের তরফে জানানো হয়েছে, বৃহস্পতিবার সকাল ৮টা বেজে ২০ মিনিট ৮ সেকেন্ডে সূর্য গ্রহণ শুরু হচ্ছে। শেষ হচ্ছে ১১টা বেজে ২৯ মিনিট ১০ সেকেন্ডে। ইতিমধ্যেই সূর্য গ্রহণের সাক্ষী থাকার জন্য প্ল্যানেটোরিয়ামের তরফে বিশেষ ব্যবস্থা নেওয়া হয়ছে। সাধারণ মানুষ যাতে এই স্বর্গীয় ঘটনা মনে মণিকোঠায় বন্দি করে নিতে পারে তার জন্য এই বিশেষ পদক্ষেপ নিয়েছে প্ল্যানেটোরিয়াম।