জ্যোতিষীর কথা শুনে নাম পাল্টেছেন যেসব তারকারা

0
217

হাত ভর্তি টাকা কারও। কারও আবার দশ আঙুলে আঙটি দশ রকমের। গ্ল্যামার দুনিয়ার ইঁদুর দৌড়ে টিকে থাকতে এমন হাজারও টোটকা ব্যবহার করেন বলিউড সেলেবরা। ভাগ্য ফেরাতে পিতৃদত্ত নাম-পদবিও পাল্টে ফেলেছেন অনেকে। এমনই কয়েকজন প্রিয় তারকাকে চিনে নিন আজকের প্রতিবেদনে।

রানি মুখোপাধ্যায় –

বলিউডের অন্যতম প্রতিভাময়ী অভিনেত্রী তিনি। কিন্তু পর পর বেশ কয়েকটি ছবি ফ্লপ করার পর, নি’রাপত্তাহী’নতায় ভুগছিলেন। সেইসময় জ্যোতিষীর পরামর্শে ইংরেজিতে পদবি লেখার সময় Mukherjee-র বদলে Mukerjee লিখতে শুরু করেন।

আয়ুষ্মান খুরানা –

ছবি বাছার সময় ষষ্ঠ ইন্দ্রিয়ের উপর ভরসা করেন আয়ুষ্মান। কিন্তু সাফল্যের জন্য চোখ বন্ধ করে ভরসা করেন জ্যোতিষীকে। সংখ্যাতত্ত্ব মেনে ইংরেজিতে নিজের পুরো নাম Ayushaman Khurana-র বদলে Ayushmann Khurrana লিখতে শুরু করেছেন।

করিশ্মা কাপূর –

‘শো ম্যান’ রাজ কাপূরের নাতনি তিনি। সাফল্য পেতে তেমন কষ্ট করতে হয়নি। কিন্তু ব্যক্তিগত জীবনে কম ঝড়-ঝাপটা সইতে হয়নি তাকে। তারপর থেকে অভিনয়েও তেমন সুযোগ পাননি। জ্যোতিষীর পরামর্শ মেনে তাই ইংরেজিতে নিজের নাম থেকে ‘h’ বাদ দিয়েছেন তিনি।

রাজকুমার রাও –

বর্তমান প্রজন্মের সবচেয়ে প্রতিভাবান অভিনেতা বলে পরিচিত রাজকুমার। কিন্তু অনেক ঝড় ঝাপটা সয়ে নিজেকে প্রতিষ্ঠা করেছেন তিনি এবং তাতে সাহায্য নিয়েছেন জ্যোতিষীরও। তবে নামের অক্ষরে হেরফের ঘটাননি তিনি, বরং নিজের পদবি পাল্টে যাদব থেকে রাও করে নিয়েছেন।

অধ্যয়ন সুমন –

ঢাকঢোল পিটিয়েই বলিউডে ডেবিউ হয়েছিল শেখর সুমনের ছেলে অধ্যয়নের। তবে অভিনয়ের চেয়ে কঙ্গনা রানাউতের সঙ্গে সম্পর্ক নিয়েই খবরে ছিলেন তিনি। সেই সম্পর্কে ইতি পড়ার সঙ্গে সঙ্গেই বলিউড থেকে গায়েব হয়ে যান অধ্যয়ন। ইংরেজিতে নামের বানান পাল্টে Adhyayan থেকে Adhyan করেছিলেন বটে। তবে লাভ হয়নি।

হৃত্বিক রোশন – 

এখন আমরা সেই ভারতীয় গ্রীক ঈশ্বরের কথা বলছি যিনি তাঁর নাম উপসর্গ করেছিলেন এবং এটিকে তাঁর চেয়ে আরও যৌ’নদৃষ্টিতে দেখিয়েছিলেন। তিনি Rithik নামটি দিয়ে তাঁর কেরিয়ার শুরু করেছিলেন, তবে যেহেতু তিনি তাঁর নামে Hrithik যুক্ত করেছেন, তার পরে আর ফিরে তাকানোর প্রয়োজন ছিল না।

বিবেক ওবেরয় –

তাকে নিয়ে প্রত্যাশা ছিল তুঙ্গে। কিন্তু সলমন খানের সঙ্গে ঝা’মেলা পাকিয়ে নিজেই নিজের পায়ে কুড়ুল মা’রেন। জ্যোতিষীর পরামর্শে ইংরেজিতে নামের বানান Vivek থেকে Viveik করে নেন। তবে তাতেও পরিস্থিতি খুব একটা পাল্টায়নি।

অজয় দেবগন –

বলিউডের এই অভিনেতা তাঁর পদবি থেকে A অক্ষরটি নামিয়ে দিয়েছিলেন, যা তাঁর নাম পরিবর্তন করে Ajay Devgan থেকে Ajay Devgn রাখে। পরামর্শটি খাঁটি সোনায় পরিণত হয়েছিল যে বিষয়টি জ্যোতিষীই হোক না কেন।

তুষার কপূর –

বলিউডে শুরুটা ভালই করেছিলেন জিতেন্দ্র-পুত্র। কিন্তু একের পর এক ব্যর্থতায় নি’রাপত্তাহী’নতায় ভুগতে শুরু করেন। তখন সংখ্যাতত্ত্ব মেনে নিজের নাম পাল্টে Tushar থেকে Tusshar করে নেন তিনি। কিন্তু তাতেও ভাগ্য খুব একটা পাল্টায়নি। বরং এখন শুধুমাত্র পার্শ্ব চরিত্রেই দেখা যায় তাকে।

সুনীল শেট্টি –

কেরিয়ারের মধ্যগগনে থাকার সময় ইংরেজিতে নিজের নাম Sunil Shetty-ই লিখতেন তিনি। তবে বেশ কয়েক বছর বলিউড থেকে গায়েব থাকার পর নতুন করে অভিনয়ে ফিরেছেন। তার আগে জ্যোতিষীর পরামর্শে নিজের নামের বানান পাল্টে Suniel করে নিয়েছেন তিনি।

সংগৃহীত – দেশে বিদেশে