বক্ষ বিভাজিকায় রবীন্দ্রনাথের গানের লাইন, রবীন্দ্রভারতী কাণ্ডের পর এবার আলোচনায় কিয়ারা

0
505

কিছুদিন আগেই রবীন্দ্রভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ের চার ছাত্রীকে নিয়ে বিতর্ক তৈরি হয়েছিল। পিঠে আবির দিয়ে রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের গান বিকৃত করে লেখায় সমালোচনার মুখো পড়ে তারা। কিন্তু এবার রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরেরই গানের লাইন বুকে লিখলেন অভিনেত্রী কিয়ারা আডবানি। যদিও তাতে বিকৃত করে কিছু লেখা হয়নি। তবুও সম্প্রতি, কিয়ারার এই ট্যাটুই আলোচনার বিষয় হয়ে উঠেছে। তবে কিয়ারার এই ট্যাটু করার বিষয়টি এক্কেবারেই সত্যি।

কিছুদিন আগেই মুক্তি পেয়েছে কিয়ারা আডবানী অভিনীত ওয়েব সিরিজ ‘গিলটি’। সেখানে উন্মুক্ত বক্ষ বিভাজিকায় ট্যাটু করে লেখা রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের একটি গানের লাইন- ‘একলা চলো রে’। আর এই নিয়েই এখন নেটদুনিয়ায় কটাক্ষের শিকার কিয়ারা।

View this post on Instagram

A leaf out of #DabbooRatnaniCalendar! @dabbooratnani @manishadratnani

A post shared by KIARA (@kiaraaliaadvani) on

গানের ট্যাটু বানানো নিয়ে অবশ্য আপত্তি নেই নেটিজেনদের। তাদের সমস্যা ট্যাটুর জায়গা নিয়ে। উন্মুক্ত বক্ষ বিভাজিকায় ‘একলা চলো রে’ লেখা অপসংস্কৃতির পরিচয় বলে মন্তব্য করেছেন তাঁরা। কেউ কেউ তো বলছেন, ওয়েব সিরিজে শরীরী আবেদন জুড়তেই উন্মুক্ত বক্ষে লেখা হয়েছে রবি ঠাকুরের গানের লাইন। যদিও ওয়েব সিরিজে নির্মাতারা একথা মানতে নারাজ। তাঁদের মতে গল্পের খাতিরেই ওই দৃশ্যটি রাখা হয়েছে।

View this post on Instagram

Sunkissed💋

A post shared by KIARA (@kiaraaliaadvani) on

নেটফ্লিক্সের ওয়েব সিরিজ গিলটি-র জন্য এই ট্যাটু বুকে এঁকেছেন কিয়ারা। সেখানে কিয়ারা একটি ব্যান্ডের সদস্য হিসেবে দেখা যাচ্ছে। আর তাই রকস্টার বেশে ধরা দিয়েছেন অভিনেত্রী। কোথাও তাঁর চুলে হাইলাইটস করা, কোথাও তাঁর নাকে পিয়ার্সিং, আবার কোথাও শরীরের বিভিন্ন জায়গায় ট্যাটু।

তবে কিয়ারা এই ট্যাটুটি করেছেন তাঁর নেটফ্লিক্সের সিরিজ ‘গিলটি’র জন্য। এই ওয়েব সিরিজে কিয়ারাকে একটি মিউজিক ব্যান্ড-এর সদস্য হিসাবে দেখা গিয়েছে। ইতিমধ্যেই নেটফ্লিক্সে অনেকেই এই সিরিজটি দেখছেন। যে ওয়েব সিরিজের বিষয়বস্তুকে উঠে এসেছে MeToo।

আপাতত এই ওয়েব সিরিজটির গল্প একটি ধর্ষণের ঘটনা ঘিরে এগিয়ে চলেছে। যদিও ‘গিলটি’র গল্প শেষপর্যন্ত কোনদিকে এগোবে তা ওয়েবসিরিজটি পুরো দেখার পরই জানা যাবে। তবে আপাতত সোশ্যাল মিডিয়ায় আলোচনার বিষয়বস্তু হয়ে উঠেছে কিয়ারা আডবাণীর এই ‘একলা চলে রে’ ট্যাটু।