ঘুমোতে ভালোবাসেন? তাহলে দেখুন ঘুম নিয়ে চমকপ্রদ কিছু তথ্য

0
1582

ঘুমোতে কে না ভালোবাসে! কিন্তু অনেকেই আছেন যারা নিয়মিত ঘুমানোর পর্যাপ্ত সময় পান না। আবার অনেকেই ইচ্ছে করেই কম ঘুমান। ডাক্তারি মতে একজন প্রাপ্তবয়স্ক মানুষের শরীর স্বাস্থ্যবান রাখার জন্য প্রতিদিন অন্তত ৮ ঘন্টা ঘুমের প্রয়োজন। ঘুম কম হলে, হতে পারে নানা ধরণের অনিদ্রাজনিত অসুখ। ঘুম কম হলেও যেমন খারাপ তেমনি অতিরিক্ত ঘুমও খারাপ। ঘুমের একটি অবিচ্ছেদ্য অংশ হল স্বপ্ন। আজ আপনাদের সামনে এই ঘুম নিয়েই মজার কয়েকটি তথ্য নিয়ে এসেছি। আপনি কি জানেন কম ঘুমালে মানুষের আয়ু কমে যায়? আপনি শুধুমাত্র তাঁকেই স্বপ্নে দেখতে পারবেন যাকে আপনি জীবনে একবার হলেও খালি চোখে দেখেছেন !

ঘুম নিয়ে এমন অনেক অজানা এবং অদ্ভুত কিছু তথ্য আপনাদের জানাবো আজ –

১. কম ঘুমালে আয়ু কমে যায়

প্রতিদিন ৬ ঘন্টার কম ঘুমালে মানুষের আয়ু কমতে থাকে। এমনকি শুধু ১ সপ্তাহ যদি কেউ ছয় ঘন্টার কম ঘুমায় তাহলে তাঁর ওজন ২ পাউন্ড বৃদ্ধি পায়। কম ঘুমালে মানুষের খাবারের রুচিহীনতাও দেখা দেয়।

২. স্বপ্নে সবাইকে দেখা যায়না

আপনি শুধুমাত্র তাদেরই স্বপ্নে দেখবেন যাদের আপনি আপনার বাস্তবিক জীবনে একবার হলেও দেখেছেন। অপরিচিত কাউকে স্বপ্নে দেখা যায়না। কাউকে যদি আপনি স্বপ্নে দেখার পরও না চিনে থাকেন তাহলে হয়ত আপনি তখন অনেক ছোট ছিলেন তাই স্বপ্নে তাঁকে আপনি চিনতে পারেননি। তবে তাঁর সাথে আপনার দেখা হয়েছেই!

৩. ঘুম মস্তিষ্কের শক্তি বাড়ায়

বারবার প্রমাণিত হয়ে এসেছে ঘুম মানুষের মস্তিষ্ককে সতেজ করে তোলে এবং ফলে তাঁরা নতুন কিছু জিনিস শেখার ব্যাপারে সতেজ মস্তিষ্ক অত্যন্ত জরুরি।

৪. তিমি মাছ এবং ডলফিনের ঘুম বড়ই অদ্ভুত!

তিমি মাছ এবং ডলফিন অর্ধেক ঘুমায়! মানে তারা একইসময়ে অর্ধেক জাগ্রত থাকে এবং অর্ধেক ঘুমিয়ে থাকে। পুরোপুরি ঘুমিয়ে পড়লে তাঁদের মস্তিষ্ক কাজ করা বন্ধ করে দেয় এবং শ্বাসপ্রশ্বাস প্রক্রিয়া ব্যাহত হয় তাই অর্ধ জাগ্রত-অর্ধ ঘুমন্ত থাকে।

৫. অ্যালার্ম ম্যান!

যখন ঘড়ি আবিষ্কৃত হয়নি তখন যদি কেউ সকালে খুব ভোরে উঠতে চায় তবে তাদের জন্য ছিল একদল মানুষ যারা সকালে একটি লাঠি নিয়ে আপনার রুমের দরজার সামনে দাঁড়িয়ে থাকত যাতে তারা আপনাকে সঠিক সময়ে ঘুম থেকে তুলে দিতে পারে।

৬. জেগে থাকার বিশ্বরেকর্ড

এখন পর্যন্ত টানা ১৮ দিন ২১ ঘন্টা ৪০ মিনিট না ঘুমিয়ে থাকার বিশ্বেরেকর্ড আছে। এতক্ষন না ঘুমানোর ফলে চোখে ঝাপসা দেখা, কথাবার্তায় পরিবর্তন, হ্যালুসিনেশন সহ অনেক সমস্যা দেখা দেয় লোকটির। তবে সম্প্রতি ভিয়েতনামের এক কৃষক দাবী করেছেন তিনি নাকি ৪১ বছর না ঘুমিয়ে আছেন। এই কারণে তিনি এখন নিজেকে মাতাল মাতাল বোধ করেন।

৭. বিড়াল খুব বেশি ঘুমায়!

বিড়াল তার জীবনের ৭০ শতাংশেরও বেশি সময় ঘুমিয়ে কাটিয়ে দেয়!

৮. স্বপ্নের কথা বেশিক্ষণ মনে থাকে না

ঘুম থেকে উঠার পর একজন মানুষ স্বপ্নে যা দেখেছিল তার ৫০শতাংশই ভুলে যায়, ১০ মিনিটের ভিতর ৯০ শতাংশই ভুলে যায়। যদি কোন স্বপ্ন আপনি মনে রাখতে চান তাহলে ঘুম থেকে উঠার সাথে সাথেই খাতায় লিখে ফেলুন আপনি স্বপ্নে কি দেখেছিলেন।

৯. স্বপ্নে ভয় পাওয়া শারীরিক অসুস্থতার লক্ষণ

গবেষণায় প্রমাণিত, বেশিরভাগ সময় হার্টের দুর্বলতা, মাইগ্রেন কিংবা অনিদ্রাজনিত সমস্যার কারণে মানুষ স্বপ্নে ভয় পেয়ে থাকন।

১০. শুধুমাত্র মানুষই ঘুম নিয়ন্ত্রণ করতে সক্ষম

মানুষই একমাত্র স্তন্যপায়ী প্রাণী যারা চাইলেই না ঘুমিয়ে থাকতে পারে। এই বৈশিষ্ট্য শুধুমাত্র মানুষেরই রয়েছে। আর তাই বেশি সমস্যাও মানুষের!

১১. হাতি, ঘোড়া, জেব্রা দাঁড়িয়েও ঘুমাতে পারে

হাতি, ঘোড়া, জেব্রা এই প্রাণীগুলি দাঁড়িয়েও ঘুমাতে পারে। গোরুও মাঝেমধ্যে দাঁড়িয়ে ঘুমায়। এছাড়াও কিছু প্রজাতির পাখি রয়েছে যারা দাঁড়িয়ে ঘুমায়।

১২. স্বপ্ন দেখার সময় চোখ নড়াচড়া করে

অনেকেই হয়ত লক্ষ্য করেছেন যে তাঁর পাশে থাকা মানুষটি ঘুমিয়ে আছে অথছ তাঁর চোখ দুইটি নড়ছে এর কারণ কি? বিজ্ঞানের ভাষায়, যখন একজন ব্যক্তি স্বপ্ন দেখেন তখন স্বপ্নে তিনি চারপাশের সবকিছু দেখতে চান আর তাই তাঁর চোখ দুটি নড়াচড়া করে।

ঘুম নিয়ে আরও কিছু মজার তথ্য আপনার জানা থাকলে কমেন্ট করে জানান।