মদ্যপানের চেয়ে, গরুর দুধেই ক্ষতি বেশী, এমনটাই দাবি করলেন বিশেষজ্ঞ

0
1657

কিছু মানুষ মদ বিক্রি করে দুধ খায়, আবার কিছু মানুয দুধ বিক্রি করে মদ খায়, কে বেশী ভাল । কেউ বলবেন প্রথমজন, আবার কেউ বলবেন দ্বিতীয়জন । প্রথমটি আত্মকেন্দ্রিক এবং খুবই স্বার্থপর । দ্বিতীয়টি অপরিণামদর্শী । যে দুধ বিক্রি করে মদ খায়, সে শুধু নিজের ক্ষতি করে । তার পরিবারের মানুষ বঞ্চিত হয় । কিন্তু যে মদ বিক্রি করে দুধ খায়, সে সমাজের হাজার হাজার মানুষের ক্ষতি করে । শুধুমাত্র নিজের লাভের জন্য ।

কোনটা খাওয়া ঠিক, কোনটা খাওয়া অস্বাস্থ্যকর, তা নিয়ে অনেক ধারণা অনেকের মধ্যে রয়েছে । ছোট বেলা থেকেই শিখিয়ে দেওয়া হয়, ‘দুধ না খেলে, হবে না ভাল ছেলে’ । আর কৈশোর পেরোতে না পেরতেই হাতে মদের গ্লাস নেওয়াই এখন ট্রেন্ড । কিন্তু অবাক করার বিষয় হলো, মদ্যপানের থেকে গরুর দুধ বেশি ক্ষতিকারক বলে দাবি করেছেন এক মার্কিন বিশেষজ্ঞ।

কারিন মিশেল নামের যুক্তরাষ্ট্রের ওই নিউট্রিশনিস্টের দাবি, গরুর দুধ মোটেই মানুষের জন্য যথাযথ নয় । তার ওই মন্তব্যের বরাতে এক সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যম এবেলায় প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে এই তথ্য দেওয়া হয়েছে ।কারণ, গরুর দুধ মোটেই মানুষের জন্য যথাযথ নয় । বিশেষ করে গরুদের কৃত্রিম রাসায়নিক এমন ভাবে প্রয়োগ করা হয় যাতে তারা দুধ প্রদান করতে সক্ষম থাকে । এই কৃত্রিম রাসায়নিকগুলি মানুষের স্বাস্থ্যের পক্ষে ক্ষতিকারক । এমনকী, ক্যানসারের মতো মারণ রোগের সম্ভাবনাও থেকে যায় । তাই গরুর দুধের বদলে সয়া মিল্ক বা আমন্ড মিল্ক খাওয়ার পরামর্শ দিচ্ছেন তিনি ।

প্রতীকী ছবি

ওই প্রতিবেদনের আরও দাবি, মদ্যপান বিভিন্ন রোগের উৎস হতে পারে । কিন্তু সামান্য পরিমাণ মদ্যপান করলে নাকি ধমনী পরিষ্কার থাকে । আবার কোলেস্টেরলের রোগীদের জন্য অ্যালকোহলের থেকেও গরুর দুধ বেশি ক্ষতিকারক বলে দাবি করেছেন কারিন । ওজন বা মেদও বাড়াতে মদ্যপানের থেকে বেশি সক্ষম গরুর দুধ । তার এমন দাবির পক্ষে কিংবা বিপক্ষে অন্য কোনো বিশেষজ্ঞ এখনও মত দেননি ।