বলিউডের সমালোচিত কয়েকটি স’মকা’মী সিনেমা ও চু’ম্বন দৃশ‍্য

0
728

সিনেমায় নায়ক-নায়িকার প্রেম আর রোমাঞ্চ নিত্যনৈমিত্তিক ঘটনা। তবে এর ব্যতিক্রমও ঘটেছে। দীর্ঘ ১৯ বছর আগে থেকেই স’মকা’মীতা ফুটে উঠেছে সিনেমার পর্দায়। ভালোবাসার স্বাভাবিক নরনারী সম্পর্কের বাইরে গিয়ে সিনেমায় দুই নারী চরিত্র ঘনিষ্ঠ হয়েছে দুজনের। আর তা নিয়ে বারবারই তোলপার হয়েছে সিনে জগত। আজ জেনে নিন অনস্ক্রিন কাঁপানো কয়েকটি লে’সবি’য়ান সিনেমার কথা-

বলিউডের সিনেমাগুলোতে বর্তমানে চু’মুর দৃশ্য খুবই সাধারণ এক ঘটনায় পরিণত হয়েছে। শুধু তাই নয়, আগে যেখানে চু’মুর দৃশ্যে দেখানো হত ফুল বা আ’গুনের দৃশ্য, সেই বলিউড এখন অনেক দূর এগিয়ে গিয়েছে। তারা এখন অনায়াসেই স’মকা’মীদের চু’ম্বন দৃশ্যপটে তুলে ধরছে। আজ জেনে নিন অনস্ক্রিন কাঁপানো কয়েকটি লে’সবি’য়ান সিনেমার কথা সেরকম কয়েকটি সিনেমা নিয়েই আজকের আয়োজন।

ফায়ার –

শাবানা আজমি এবং নন্দিতা দাস, এই দুই অভিনেত্রীই অনেক উচ্চ মানের অভিনয়শিল্পী। এবং তারা দুইজনই খুবই প্রফেশনালভাবে ‘ফায়ার’ সিনেমাতে চু’ম্বনের দৃশ্যে অভিনয় করেন এবং ক্যামেরার সামনে তারা একদমই বিব্রত বোধ করেননি।

দীপা মেহতার এই সিনেমাতে স’মকা’মীদের ভালোবাসা বোঝানোর জন্য ব্যবহৃত এই দৃশ্যগুলো খুব বিতর্কিত হয়।

গার্লফ্রেন্ড –

২০০৪ সালে এক নারীর সঙ্গে আরেক নারীর প্রেমের সম্পর্কের অভিনয় করেছেন অমৃতা আরোরা এবং ঈশা কোপিকর।

সিনেমাটির নাম ছিল গার্লফ্রেন্ড। সেইসময় সমালোচনার ঝড় উঠেছিল দর্শকমহলে।

রাগিণী এমএমএস টু –

সানি লি’ওন এবং সান্ধ্যা মৃদুল, বলিউডের এই দুই অভিনেত্রী ‘রাগিণী এমএমএস টু’ সিনেমাতে চু’ম্বনের দৃশ্যে অভিনয় করেন। ‘বেবি ডল’ খ্যাত সানি লিওন।

সিনেমার খাতিরে সানি এই দৃশ্যকে বাস্তব রুপে ফুটিয়ে তোলেন। শুধু তাই নয়, এই দৃশ্য সিনেমার প্রচারণার কাজেও ব্যবহৃত হয়।

বোম্বে টকিজ –

সাকিব সেলিম এবং রণডীপ হুড্ডা, এই দুই অভিনেতাকে ‘বোম্বে টকিজ’ সিনেমায় চু’ম্বনের দৃশ্যে অভিনয় করতে দেখা যায়। করণ জোহর পরিচালিত এই সিনেমাটির চু’ম্বন দৃশ্য নিয়ে ব্যাপক সমালোচনা হয়।

সাকিব মজা করে এক সাক্ষাৎকারে বলেন, তার প্রথম সিনেমায় তিনি এক মেয়েকে চু’ম্বন করেন, কেউ তা নিয়ে কথা বলেনি কিন্তু এই সিনেমা নিয়ে সবাই সমালোচনা শুরু করে দিয়েছে।

আই কান্ট থিঙ্ক স্ট্রেট –

লিসা রে এবং শীতল শেঠ, এই দুই অভিনেত্রী ‘আই কান্ট থিঙ্ক স্ট্রেট’ সিনেমাতে স’মকা’মী যুগলের চরিত্রে অভিনয় করেন। এখানে তারা খুব ঘনিষ্ঠভাবেই চু’ম্বনের দৃশ্যে অভিনয় করেন।

লিসা এবং শীতল আরও একটি সিনেমায় অভিনয় করতে চলেছেন এবং তাও স’মকা’মী ভালোবাসা নির্ভর।

আই অ্যাম –

রাহুল বোস এবং অর্জুন মাথুর, ‘ওমর’ শিরোনামে স’মকা’মীদের অধিকার নিয়ে নির্মিত চারটি সিনেমার একটি সিনেমা ‘আই অ্যাম’ এই দুই অভিনেতা চু’ম্বনের দৃশ্যে অভিনয় করেন।

অনলাইন পোর্টাল গে বোম্বে থেকে নেওয়া বিভিন্ন গল্প অবলম্বনে এই সিনেমাটি নির্মিত হয়।

হিরোইন –

মধুর ভান্ডারকরের সিনেমা ‘হিরোইন’ এ পুরুষদের হার্টথ্রব কারিনা কাপুর একটি দৃশ্যে ঘনি’ষ্ঠ হয়েছিলেন অভিনেত্রী সাহানা গোস্বামীর সঙ্গে। একজন সফল নায়িকা হওয়ার দৌড়ে কারিনা কাপুরের বিভিন্ন উথ্থান পতনের চিত্র দেখা গিয়েছে এই সিনেমায়।

তার মধ্যেই একটি চিত্রে সাহানা প্রেমে পরে কারিনার। তাদের ঘনি’ষ্ঠতাও ফুটে ওঠে এই সিনেমার গল্পে।

দেড় ইস্কিয়া –

‘দেড় ইস্কিয়া’ সিনেমার শেষ অংশে দেখা যায় মাধুরী দিক্ষীত এবং হুমা কুরেশী পরষ্পরকে ভালোবাসতেন।

সেই ভালোবাসার কারণেই তৈরি হয়েছিল সমস্ত গল্প। এই সিনেমায় দুই অভিনেত্রীকে ঘনিষ্ঠভাবে দেখা গিয়েছে।

মার্গারেট উইথ অ্যা স্ট্র –

কালকি কোয়েচলিনও বাদ যান নি স’মকা’মীতার অভিনয়ের তালিকা থেকে। ‘মার্গারেট উইথ অ্যা স্ট্র’ সিনেমায় কাল্কিকেও দেখা গিয়েছে অন্য অভিনেত্রীর সঙ্গে ঘনি’ষ্ঠভাবে।

কাজেই বোঝা যাচ্ছে বলিউডও আর দৃশ্যের দিক দিয়ে কোন অংশে পিছিয়ে নেই। চরিত্রের প্রয়োজনে চু’ম্বন দৃশ্য, তা যেন কোন বিষয়ই নয়।